টেক/অটোমোবাইল

অবিশ্বাস্য মূল্যে! ভিভো একটি বিশাল 6.64 ইঞ্চি ডিসপ্লে এবং 8GB র‍্যাম সহ আলটিমেট ওয়াটারপ্রুফ ফোন লঞ্চ করেছে

ভিভোর সর্বশেষ স্মার্টফোনটি একটি দুর্দান্ত 6.64 ইঞ্চি ফুলএইচডি প্লাস এলসিডি ডিসপ্লে প্রদর্শন করে, যা ব্যবহারকারীদের একটি নিমজ্জিত ভিজ্যুয়াল অভিজ্ঞতা প্রদান করে। ডিসপ্লেতে 90 Hz এর রিফ্রেশ রেট এবং 650 nits এর সর্বোচ্চ উজ্জ্বলতা রয়েছে, যা প্রাণবন্ত এবং ক্রিস্প ভিজ্যুয়াল নিশ্চিত করে। উন্নত অ্যান্ড্রয়েড 13 অপারেটিং সিস্টেমে চলমান এই ফোনটি একটি নিরবচ্ছিন্ন এবং স্বজ্ঞাত ইউজার ইন্টারফেস সরবরাহ করে।

হুডের নিচে, Vivo Y36 শক্তিশালী অক্টা কোর স্ন্যাপড্রাগন 680 প্রসেসর দ্বারা চালিত হয়, যার সাথে একটি উদার 8 GB RAM রয়েছে। এই সমন্বয় মসৃণ মাল্টিটাস্কিং এবং দ্রুত কর্মক্ষমতা গ্যারান্টি দেয়। 256 GB পর্যন্ত অন্তর্নির্মিত স্টোরেজ সহ, ব্যবহারকারীদের কাছে তাদের প্রিয় অ্যাপ, ফটো এবং ভিডিও সংরক্ষণ করার জন্য যথেষ্ট জায়গা রয়েছে। উপরন্তু, স্টোরেজ ক্ষমতা একটি মাইক্রো SD কার্ড ব্যবহার করে 1 টিবি পর্যন্ত প্রসারিত করা যেতে পারে। উপরন্তু, ফোনটি 8 জিবি পর্যন্ত র‍্যামের ভার্চুয়াল সম্প্রসারণ সমর্থন করে, যা উন্নত মাল্টিটাস্কিং ক্ষমতার জন্য মঞ্জুরি দেয়।

Vivo Y36 4G স্মার্টফোনের ক্যামেরা দক্ষতার দিকে আমাদের দৃষ্টি আকর্ষণ করে, এটি একটি ডুয়াল রিয়ার ক্যামেরা সেটআপ নিয়ে গর্ব করে। প্রাথমিক সেন্সরটি একটি চিত্তাকর্ষক 50 মেগাপিক্সেলের গর্ব করে, যা অত্যাশ্চর্যভাবে বিস্তারিত এবং তীক্ষ্ণ ছবি নিশ্চিত করে। প্রাথমিক সেন্সরের পাশাপাশি, একটি 2 মেগাপিক্সেল সেকেন্ডারি সেন্সর গভীরতা এবং অতিরিক্ত বৈশিষ্ট্য সরবরাহ করে। ফ্রন্টে, ফোনটিতে একটি 16 মেগাপিক্সেল ক্যামেরা সেন্সর রয়েছে যা শ্বাসরুদ্ধকর সেলফি তোলার জন্য এবং উচ্চ মানের ভিডিও কলে জড়িত।

আরো পড়ুন:- Google Pixel 7a অতুলনীয় শক্তি বিশ্বকে স্তব্ধ করে দেয়

ডিভাইসটিকে পাওয়ারিং একটি শক্তিশালী 5000mAh ব্যাটারি, যা ঘন ঘন রিচার্জ করার প্রয়োজন ছাড়াই বর্ধিত ব্যবহার নিশ্চিত করে। উপরন্তু, ফোনটি 44-ওয়াট দ্রুত চার্জিং সমর্থন করে, যাতে ব্যাটারি দ্রুত পুনঃস্থাপন করা যায়। স্থায়িত্বের ক্ষেত্রে, Vivo Y36 IP54 রেটযুক্ত, যা জল এবং ধুলোর বিরুদ্ধে প্রতিরোধের প্রস্তাব দেয়। এটি বিভিন্ন পরিবেশে ব্যবহারকারীদের জন্য মানসিক শান্তি নিশ্চিত করে। কানেক্টিভিটির ক্ষেত্রে, Vivo Y36 বিভিন্ন অপশন অফার করে। এটি সঠিক নেভিগেশনের জন্য GPS, নিরবিচ্ছিন্ন ওয়্যারলেস সংযোগের জন্য ব্লুটুথ v5.1 এবং সুবিধাজনক এবং নিরাপদ মোবাইল লেনদেনের জন্য NFC সমর্থন করে।

বর্তমানে, Vivo এই চিত্তাকর্ষক ফোনটি শুধুমাত্র ইন্দোনেশিয়ায় লঞ্চ করেছে। এটি দুটি আকর্ষণীয় রঙের বিকল্পে উপলব্ধ অ্যাকোয়া গ্লিটার এবং মিটিওর ব্ল্যাক। Vivo Y36-এর 4G ভেরিয়েন্ট, 256GB স্টোরেজ এবং 8GB RAM সহ, এর দাম প্রায় 18,700 টাকা। 5G সংস্করণের জন্য, এটি ক্রিস্টাল গ্রিন এবং মিস্টিক ব্ল্যাক রঙে আসে, তবে দামের বিশদটি এখনও কোম্পানির দ্বারা প্রকাশ করা হয়নি।

Sudipta

আমি সুদীপ্ত নাগা, দীর্ঘদিন যাবত ব্লগিং এর সঙ্গে যুক্ত। আমার এই ওয়েবসাইটির মাধ্যমে আপনার নিত্যদিনের তাজা খবর, জিনিসপত্রের দাম, সিরিয়ালের পর্ব, টাকার রেট সম্মন্ধে সবার আগে জানতে পারবেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button